পূর্বজারুল বাগান এডুকেশন সোসাইটি’র সংবর্ধনা ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান।

স্টাফ রিপোর্টারঃ
রাঙামাটির লংগদু উপজেলার পূর্ব জারুলবাগান এডুকেশন সোসাইটির উদ্যোগে বিজয় সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে স্নাতক-স্নাতকোত্তর সংবর্ধনা ও ক্রীড়া প্রতিযোগীতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।
শুক্রবার বিকালে, উপজেলার পূর্ব জারুলবাগান এলাকাস্থ স্থানীয় মাঠে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে সোসাইটি’র সভাপতি মোঃ আমির হোসেন এর সভাপতিত্বে সঞ্চালনা ও স্বাগত বক্তব্য দেন, এডুকেশন সোসাইটির পরামর্শক মন্ডলীর সদস্য অরবিট ক্রেডিট স্কুল এন্ড কলেজ ( অক্সিজেন ক্যাম্পাস) এর সম্মানিত প্রিন্সিপাল সাংবাদিক মোঃ আল আমিন।
প্রধান অতিথির ব্ক্তব্য রাখেন, লংগদু উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল বারেক সরকার। প্রধান বক্তার বক্তাব্য রাখনে, লংগদু সরকারী কলেজের প্রভাষক মোঃ হারুন অর রশীদ। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, গাঁথাছড়া বায়তুশ শরফ কমপ্লেক্সে সম্মানিত সুপার আলহাজ্ব হাফেজ মাওলানা ফোরকান আহম্মদ, মাইনীমুখ ইসলমীয় আলীম মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা ফেরদৌস আলম, রাবেতা মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: নুরুল করিম, । উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম ঝান্টু, লংগদু প্রেস ক্লাবের সভাপতি মোঃ এখলাস মিঞা খান।ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ এর মাইনীমুখ আউটলেট শাখা ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃ রাসেল।
অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, করল্যাছড়ি আর এস উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুর রহীম, মাইনীমুখ মডেল হাই স্কুলের সহ প্রধান শিক্ষক তাজ মাহমুদ, উত্তর ইয়ারিংছড়ি সেনা মৈত্রী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল মালেক, সাংবাদিক ওমর ফারুক মূছা, ইউপি সদস্য মোঃ হোসেন আলী, মাওলানা হাফেজ আব্দুল মতিন, শিক্ষক মো ও সাংবাদিক মো: আলমগীর হোসন সহ বিভিন্ন গন্যমান্য ব্যাক্তিগন উপস্থিত ছিলেন।
বক্তারা বলেন, যে দেশে গুণিজনকে সম্মান করে না সে দেশে গুণি জন্মায় না। তাই গুণিজনকে সন্মান দেওয়া আমাদের রেওয়াজে পরিনত করতে হবে। আজকে এ এলাকার যু্বক, ছাত্ররা যে উদ্যোগ নিয়ে মেধাবী শিক্ষার্থী এবং গুণীজনদের সংবর্ধনা ও খেলাধুলার পুরস্কার দিচ্ছে তার জন্য পূর্ব জারুল বাগান এডুকেশন সোসাইটির এই মহতি উদ্যোগকে স্বাগত জানাই। আগামীতেও যাতে এধরণের মহতী উদ্যোগ নিতে পারে তার জন্য সকলের সহযোগীতার কামনা করেছেন বক্তারা।
শেষে অতিথিগন বিভিন্ন ক্যাটাগড়িতে খেলাধুলা প্রতিযোগীতায় বিজয়ী ও মেধাবী ছাত্র ছাত্রী সহ গন্যমান্যদেরও পুরস্কার স্বরুপ ক্রেস্ট উপহার তুলে দেন।
সংগঠণের এডুকেশন সোসাইটির পরামর্শক মন্ডলীর সদস্য মো: আল আমিন তার স্বাগত বক্তব্যে বলেন, পূর্ব জারুল বাগান উপজেলার একটি অবহেলিত এলাকা, যেখানে কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেনি। অবহেলিত এ দ্বীপের ন্যায় এলাকাটিতে শিক্ষার আলো ছড়াতে এ সংগঠণ কাজ করে যাবে। এবং মানবতা মূলক সকল ধরণের কাজের জন্য এ সংগঠণের সৃষ্টি ।এখানে একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান করার জন্য ভিত্তবানদের প্রতি আহবান জানান ।
এ অনুষ্ঠানে যাদের কে সম্মননা প্রদান করা হয়েছে।
অনুষ্ঠানে ৭ জনকে গুণিজন সম্মাননা ।
১৮ জনকে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিশেষ সম্মাননা ।
৪ জনকে দাতা ও সম্মানিত অতিথি সম্মননা।
১৭ জনকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্মাননা।
২ জনকে পবিত্র কোরআনে হাফেজ সম্মাননা।
৭ জনকে কৃতি ছাত্র এসএসসি ২০২১ সম্মাননা।
৩৫ জনকে সদস্য পদ গ্রহণ সম্মননা।
১২ জনকে সহযোগী সদস্য পদ গ্রহণ সম্মননা।
৫৪ জনকে টি-শার্ট সম্মনন।
৬০ জন এলাকার মুরব্বী ও সম্মানিত অভিভাবকে সম্মাননা।
১৯৬ জন কচিকাঁচা বাচ্চাদেরকে ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কারসহ শতাধিক শান্তনা পুরস্কার প্রদান করা হয় ।
এ সংগঠনে ৪৫ জন সদস্য নিয়ে পথচলা শুরু করে গত ২০২০ সাল থেকে।

সামঞ্জস্যপূর্ণ সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।